1. admin@somoynews.net : admin :
বুধবার, ২৯ মার্চ ২০২৩, ০৩:১০ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে সংগঠণকে শক্তিশালী করার আহবান জানালেন এমপি খোকা হকার মুক্ত মদনপুর ফুটওভার ব্রিজ-পথচারী চলাচলে স্বস্তি এমপি খোকার নির্দেশনায় জাবেদ রায়হানের মাসব্যাপি ইফতার বিতরণ ধামগড় পুলিশ ফাঁড়ির অভিযানে ৭৫পিস ইয়াবাসহ মাদক ব্যবসায়ী ডালিম গ্রেফতার ৫ কেজি গাজা সহ মাদক কারবারিকে গ্রেপ্তার করেছে সোনারগাঁ থানা পুলিশ গরীব দূঃখী মেহনতী মানুষ সারাজীবন এরশাদকে স্বরণ রাখবে..এমপি খোকা প্রেমিককে বিয়ের জন্য চাপ দেয়ায় রোজিনাকে গলাকেটে হত্যা সমাজের নির্যাতিত নিপিড়ীত শোষিত মানুষের কথা বলে জাতীয়পার্টী..এমপি খোকা র‍্যাবের গুলিতে কাসেমের মৃত্যুতে নিঃস্ব তার পরিবার,শোকের মাতম সোনারগাঁয়ে ৩০ বোতল ফেন্সিডিল ও ৪কেজি গাঁজা সহ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

উপজেলা হাসপাতালে জনবলের অভাবে চিকিৎসা সেবা বঞ্চিত সোনারগাঁবাসী

সময় নিউজ ডেস্ক :
  • প্রকাশিত : শুক্রবার, ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০২২
  • ১২৪ বার পঠিত

উপজেলা হাসপাতালে জনবলের অভাবে চিকিৎসা সেবা বঞ্চিত সোনারগাঁবাসী

এমডি অনিক, সোনারগাঁ, নারায়ণগঞ্জ:
প্রয়োজনীয় জনবল না থাকায় চিকিৎসা সেবা বঞ্চিত হচ্ছে নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয়ের জনসাধারন। গত ০৪ সেপ্টেম্বর উপজেলার একমাত্র স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সটি ৩১ শয্যা থেকে ৫০ শয্যায় উন্নীত করে ভবন উদ্বোধন করা হয়। মানুষের আশা ছিল আগের তুলনায় স্বাস্থ্য সেবার মান বাড়বে ভোগান্তি কমবে। কিন্তু হচ্ছে উল্টো, ৩১ শয্যার জনবল দিয়েই ৫০ শয্যার হাসপাতালটিতে স্বাস্থ্য সেবা চালানো হচ্ছে। এতে সেবার মান ব্যাহত হচ্ছে ভোগান্তিতে পড়ছেন চিকিৎসা নিতে আসা রোগীরা। হাসপাতালে শুধু রক্ত পরীক্ষা ছাড়া সকল পরীক্ষা বাহিরের ক্লিনিক গুলো থেকে করতে হচ্ছে। হাসপাতালে ১৯ জন চিকিৎসক থাকার কথা থাকলেও মাত্র আছেন ৯ জন চিকিৎসক। দীর্ঘ দিন ধরে হাসপাতালের সার্জারী কনসালটেন্ট এর পদটি শূন্য রয়েছে। হাসপাতালের চিকিৎসক, নার্স, পরিচ্ছন্নতাকর্মী, নিরাপত্তাকর্মী সহ  ১৫২টি পদের মধ্যে ৩৯টি পদই শূন্য থাকায় প্রতিদিনই ভোগান্তি বাড়ছে চিকিৎসা সেবা নিতে আসা রোগীদের। হাসপাতালে একটি মাত্র সরকারী অ্যাম্বুলেন্স থাকলেও চালক দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী থাকায় পরিবহন সুবিধা পাচ্ছেনা রোগীরা।
সরেজমিন গিয়ে দেখা যায়, বর্হি বিভাগে একটি মাত্র কাউন্টারের মাধ্যমে নারী পুরুষ লাইনে দাড়িয়ে টিকিট কেটে চিকিৎসা সেবা নিতে গিয়ে দীর্ঘ সময় অতিবাহিত হওয়ার কারনে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হচ্ছে।
উপজেলার ১০টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভার প্রায় ৫ লক্ষাধিক মানুষের একমাত্র ভরসা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স। হাসপাতালে প্রতিদিন বর্হি বিভাগে ৪০০ রোগী সেবা নিতে আসেন। তবে চিকিৎসক না থাকায় ঘন্টার পর ঘন্টা অপেক্ষা করে চিকিৎসা না পেয়ে বাড়ী ফিরে যান তারা।
উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ সাবরিনা হক এ বিষয়ে বলেন,আমার হাসপাতালের ডাক্তার ও নার্স সহ সকলের আন্তরিকতায় ও তাদের নিরলস পরিশ্রমের মাধ্যমেই এই স্বল্প সংখ্যক জনবল দিয়েই বিপুল পরিমাণ রোগিদের চিকিৎসা সেবা দিতে প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।তবে বিভিন্ন পদের জনবলের চাহিদা দেয়া হয়েছে,আশা করি অচিরেই সকল শূন্য পদ পূরণ হবে এবং সোনারগাঁবাসীকে স্বল্প সময়ে স্বাস্থ্য সেবা প্রদান করতে পারবো।
সংবাদটি শেয়ার করুন :
এ জাতীয় আরও খবর